শনিবার, ০৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৪:৪১ পূর্বাহ্ন

খানসামায় বাণিজ্যিক ভিত্তিতে গাছ আলু চাষ

মো. রফিকুল ইসলাম, করেসপন্ডেন্ট, জাগো২৪.নেট, চিরিরবন্দর (দিনাজপুর)
  • প্রকাশের সময় : সোমবার, ২৩ জানুয়ারী, ২০২৩
দিনাজপুরের খানসামা উপজেলায় প্রথমবার বাণিজ্যিকভাবে গাছ আলুর (স্থানীয়ভাবে মাজালু বলা হয়) চাষ হয়েছে। অত্রাঞ্চলের মাটি গাছ আলু চাষের উপযোগী হওয়ায় ফলনও ভালো হয়েছে। প্রতিটি আলুর ওজন অন্তত ৭-৮ কেজি। স্বল্প খরচে দাম ভালো পাওয়ায় কৃষকরাও খুশি। পুষ্টি গুণে সমৃদ্ধ ও লাভজনক এ আলুর চাষ ধরে রাখতে উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর কৃষকদের অসহযোগিতা করছে। প্রতিটি আলুর ওজন ৭-৮ কেজি হওয়ায় এলাকার অন্যান্য কৃষকরাও আগ্রহ প্রকাশ করছেন।
উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা গেছে, কন্দাল ফসল উন্নয়ন প্রকল্পের সহায়তায় চলতি মৌসুমে ৪০ শতক জমিতে দুইজন কৃষক বাণিজ্যিকভাবে এ আলু চাষ করেছেন। শুধু তাই নয়-অনেকে ব্যক্তি উদ্যোগেও ক্ষুদ্র পরিসরে গাছ আলু আবাদ করেছেন।
জানা গেছে, উপজেলার টংগুয়া ও খামারপাড়া গ্রামে কৃষি বিভাগের সহায়তায় ঝিনাইদহের স্থানীয় জাতের গাছ আলু চাষ করেছেন কৃষকরা। কৃষকরা ২০ শতক জমিতে ২ হাজার কেজি আলু ফলনের আশা করছেন। এ আলুর বর্তমান বাজারদর প্রতিকেজি ৩০ টাকা। স্বল্প ব্যয়ে অধিক লাভে খুশি চাষিরা। তারা জানান, অন্যান্য সবজির মতোই এ আলু ভর্তা ও মাছ-মাংসের সাথে রান্না করে খাওয়া যায়। আলুটি খেতে সুস্বাদু ও মুখরোচক হওয়ায় বাজারে বেশ চাহিদা রয়েছে।
খামারপাড়ার কৃষক আসাদুজ্জামান বলেন, গাছ আলু চাষ করে অন্যান্য ফসলের চেয়ে বেশি লাভ পাওয়া যায়। স্থানীয় বাজারসহ অন্যান্য এলাকায় গাছ আলুর চাহিদা থাকায় অনেক কৃষক তা চাষে আগ্রহী হচ্ছেন।
টংগুয়া গ্রামের কৃষক খয়রাত হোসেন জানান, কৃষি বিভাগের অনুপ্রেরণায় আমি ২০ শতক জমিতে গাছ আলু লাগিয়েছি। এতে আমার ১৫-২০ হাজার টাকা খরচ হয়েছে। এই জমিতে উৎপাদিত আলু বিক্রি করে অন্তত ৬০ হাজার টাকা পাবো।
উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা বাসুদেব রায় জানান, উপজেলায় প্রথমবারের মতো পুষ্টিগুণ সমৃদ্ধ গাছ আলুর বাণিজ্যিকভাবে চাষ করে সাফল্য পাওয়া গেছে। এতে আমরা সন্তুষ্ট। স্থানীয় বাজার ছাপিয়ে অন্যান্য বাজারেও এ গাছ আলু সরবরাহ করা হচ্ছে। তিনি আরো জানান, অন্যান্য ফসলের তুলনায় গাছ আলু চাষে শ্রম ও ব্যয় কম লাগে। আশা করছি, আগামীতে এর চাষ আরো বৃদ্ধি পাবে। গাছ আলু চাষে কৃষি বিভাগের পক্ষ থেকে কৃষকদেন প্রয়োজনীয় পরামর্শ ও সহায়তা দেয়া হচ্ছে।

শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরও খবর

© ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | জাগো২৪.নেট

কারিগরি সহায়তায় : শাহরিয়ার হোসাইন